পঞ্চগড়ে পৃথক পৃথক ঘটনায় শিশুসহ ৩ জনের মৃত্যু

প্রকাশিত: ১১:২৫ পূর্বাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ১৫, ২০২৩

এন এ রবিউল হাসান লিটন, পঞ্চগড় প্রতিনিধি:পঞ্চগড়ে পৃথক পৃথক ঘটনায় শিশুসহ ৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। ১৪ সেপ্টেম্বর (বৃহস্পতিবার) জেলার তেঁতুলিয়া উপজেলার বাংলাবান্ধা ইউনিয়নে রুহুল আমিনের ছেলে রাফসান (১৬ মাস), দুপুরে বোদা উপজেলার সদর ইউনিয়নের মন্নাপাড়া গ্রামের সফিজুলের ছেলে নূর ইসলাম নুরু (৩৬) বিদ্যুৎপৃষ্টে মৃত্যু হয় এবং একই উপজেলার মাড়েয়া বামনহাট ইউনিয়নের যাগির এলাকার শান্তিরাম বর্মন (৯৪) আত্মহত্যা করেন।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, বাংলাবান্ধা এলাকার শিশু রাফসান সকালে তার বাবার সঙ্গে খেলা করছিল।
একপর্যায়ে সবার অগোচরে শিশুটি খেলতে খেলতে বাড়ি থেকে বের হয়ে পাশের পুকুরে পড়ে যায়। অনেক সময় ধরে শিশুটিকে না পেয়ে খোঁজা শুরু করে বাড়ির লোকজন। পরে স্থানীয়দের সহায়তায় পুকুর থেকে ভাসমান অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে স্থানীয় পল্লি চিকিৎসকের কাছে নিয়ে গেলে তিনি শিশুটিকে মৃত ঘোষণা করেন।

এদিকে বোদা উপজেলার সদর ইউনিয়নের মন্নাপাড়ায় প্রতিদিনের মতো নূর ইসলাম নুরু নিজ বাড়িতে অটোরিকশার ব্যাটারি চার্জ দেন। দুপুরে চার্জে থাকা সুইস খুলতে গিয়ে বিদ্যুৎপৃষ্ট হন তিনি। পরিবারের সদস্যরা দ্রুত তাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক উন্নত চিকিৎসার জন্য ঠাকুরগাঁও সদর হাসপাতালে রেফাট করলে পথে তার মৃত্যু হয়। অপরদিকে একই উপজেলার মাড়েয়া বামনহাট ইউনিয়নের যাগির এলাকার বাসিন্দা মানসিক ভারসাম্যহীন শান্তিরাম বর্মন বাড়ির পাশে থাকা একটি বাগানের গাছে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেন।

এ বিষয়ে তেঁতুলিয়া মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবু সাঈদ চৌধুরী ও বোদা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সুজয় কুমার রায় বলেন, খবর পেয়ে মরদেহগুলোর প্রাথমিক সুরতহাল শেষে পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। পৃথক এ ঘটনায় পরিবারের কোনো অভিযোগ না থাকায় থানায় অপমৃত্যু (ইউডি) মামলা দায়ের করা হয়েছে।