| | সোমবার, ৩রা অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ২০শে রবিউল-আউয়াল, ১৪৪১ হিজরী |

এবার মাকে পিটিয়ে গ্রেফতার ছেলে

প্রকাশিতঃ ১১:০৯ পূর্বাহ্ণ | অক্টোবর ২৭, ২০১৮

ভারতের পশ্চিমবঙ্গের অশোকনগরে ছেলের হাতে বাবা হেনস্তা হওয়ার ঘটনা রেশ কাটতে না কাটতে এবার আরও এক ঘটনার জন্ম দিলো। এবারও সেই অশোকনগরেই। পান্তা ভাত খেতে দেয়ার ‘অপরাধে’ বৃদ্ধা মাকে বেধড়ক মেরেছে ছেলে। লোহার রডের আঘাতে বৃদ্ধার ডান হাতের বেশ কিছুটা অংশ কেটে গেছে।

গত বৃহস্পতিবার রাতে অশোকনগর থানার কল্যাণগড়ের ষাটফুট এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। পরে রাতেই পুলিশ অভিযুক্ত ওই ছেলেকে গ্রেফতার করে। তবে ছেলের হাতে প্রহৃত হওয়ার কথা স্বীকার করলেও বৃদ্ধা ছেলের নামে থানায় অভিযোগ করতে রাজি নন। উল্টো শুক্রবার সকালে থানায় গিয়ে ছেলেকে ছেড়ে দেয়ার অনুরোধ করেছেন তিনি।

পুলিশের বরাত দিয়ে আনন্দবাজার পত্রিকার এক প্রতিবেদনে বলা হয়, পুলিশ বৃদ্ধা লক্ষ্মী মিত্রের অনুরোধ রাখেনি। ছেলের বিরুদ্ধে বৃদ্ধা কোনো অভিযোগ না করলেও পুলিশ স্বতঃপ্রণোদিত ভাবে মামলা দায়ের করেছে।

ছেলের হাতে মার খেয়ে কেন পুলিশের কাছে অভিযোগ করছেন না? -এমন প্রশ্নের জবাবে মা বলেছেন, ‘ছেলে ছাড়া আমাদের তো আর কেউ দেখার নেই। ছেলেকে আর একটা সুযোগ দিতে চাই।’

এদিকে কয়েকদিন আগে অশোকনগরে একই ঘটনা ঘটে। ফেসবুকে ভাইরাল হওয়া ভিডিওতে দেখা যায়, বৃদ্ধ বাবার জামার কলার ধরে চড় মেরে যাচ্ছে ছেলে। দোষ, স্ত্রীর মধুমেহ থাকা সত্ত্বেও মিষ্টি খাইয়েছেন মানিকলাল বিশ্বাস। সামান্য এ কারণেই বাবাকে মারধর করেছে ‘গুণধর’ ছেলে।

ঘটনা পর প্রদীপ নামের ওই ছেলেকে আটক করে পুলিশ। তবে তাকেরও ছেড়ে দেয়ার অনুরোধ করেছেন বাবা মানিকলাল বিশ্বাস। তবে পুলিশ প্রদীপকে ছাড়েনি। পরে সে আদালতে জামিন পেয়েছে।

Matched Content

দৈনিক সময় সংবাদ ২৪ ডট কম সংবাদের কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি,আলোকচত্রি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে র্পূব অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করা সর্ম্পূণ বেআইনি। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে যে কোন কমেন্সের জন্য কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়।


Shares