| | মঙ্গলবার, ২রা আশ্বিন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ১৮ই মুহাররম, ১৪৪১ হিজরী |

২২০ কিলোমিটার ওয়াকওয়ে নির্মাণ হবে : নৌমন্ত্রী

প্রকাশিতঃ ৯:৪৮ অপরাহ্ণ | অক্টোবর ০৫, ২০১৮

স্টাফ রিপোর্টার :‘বুড়িগঙ্গা, তুরাগ, শীতলক্ষ্যা ও বালু নদ-নদীর তীরে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ এবং সেসব স্থান যাতে পুনরায় দখল হয়ে না যায় সে লক্ষ্যে ৫২ কিলোমিটার ওয়াকওয়ে (হাঁটার রাস্তা) নির্মাণ করা হচ্ছে। পর্যায়ক্রমে ঢাকার চারপাশে নৌপথের দু’তীরে ২২০ কিলোমিটার ওয়াকওয়ে নির্মাণ হবে। নদীর সীমানা চিহ্নিতের লক্ষ্যে ১০,৮২০টি টেকসই সীমানা পিলার নতুন করে স্থাপন হবে।’

নৌ-পরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খান শুক্রবার আশুলিয়া ল্যান্ডিং স্টেশন প্রাঙ্গণে নদীর সীমানা পিলার, ওয়াকওয়ে, ইকোপার্ক ও জেটি নির্মাণকাজের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, নদী বাংলাদেশের প্রাণ। নদী হারিয়ে গেলে বাংলাদেশের অস্তিত্ব থাকবে না। নদী রক্ষায় এবং এর দখল ও দূষণরোধে সকলকে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার আহ্বান জানান মন্ত্রী।

বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌপরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআইডব্লিউটিএ) ৫২ কিলোমিটার ওয়াকওয়ে নির্মাণের পাশাপাশি ৪৪ হাজার ৭৮৩ মিটার ব্যাংক প্রটেকশন, এক হাজার মিটার কি-ওয়াল, ১৯টি আরসিসি স্টেপসহ আরসিসি জেটি, তিনটি ইকোপার্ক এবং ১০ হাজার ৮২০টি সীমানা পিলার নির্মাণ করবে। এজন্য ব্যয় হবে ৮৪৮ কোটি ৫৫ লাখ টাকা। চার বছর মেয়াদের এ প্রকল্পের মেয়াদ ২০২২ সালের জুন পর্যন্ত।

এ প্রকল্পের আওতায় ঢাকা নদী বন্দরের অন্তর্ভুক্ত রামচন্দ্রপুর থেকে বসিলা পর্যন্ত ৩.৫৫ কিলোমিটার, রায়েরবাজার খাল থেকে কামরাঙ্গীরচর পর্যন্ত ৪.৪৫ কিলোমিটার, হাসনাবাদ-কাওটাইল ৮.৩৫ কিলোমিটার, সদরঘাট- বাবুবাজার ব্রিজ পর্যন্ত এক কিলোমিটার, ফতুল্লা-ধর্মগঞ্জ ৩.৫০ কিলোমিটার, টঙ্গি নদী বন্দরের আওতায় বাতুলিয়া উজানপুর ৩.৭২৫ কিলোমিটার, পাগার মৌজা-হারবাইদ ৩.০৬৮ কিলোমিটার, আশুলিয়া কামারপাড়া (ঢাকা প্রান্তে) ৩.৫৬ কিলোমিটার, আশুলিয়া-কামারপাড়া (গাজীপুর প্রান্তে) ৩.৭৫০ কিলোমিটার, নারায়ণগঞ্জ নদী বন্দরের আওতায় ডিইপিটিসি এলাকা ২.৫০ কিলোমিটার, নারায়ণগঞ্জ সাইলো হতে কুমুদিনী ৮.৫৫ কিলোমিটার এবং সুলতানা কামাল-কাঁচপুর সেতু এলাকা পর্যন্ত ছয় কিলোমিটার, সর্বমোট ৫২ কিলোমিটার ওয়াকওয়ে নির্মাণ হবে।

বিআইডব্লিউটিএ’র চেয়ারম্যান কমডোর এম মোজাম্মেল হকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন সংসদ সদস্য সাহারা খাতুন, প্রকল্প পরিচালক নুরূল আমিন, আওয়ামী লীগ নেতা মো. আফসারউদ্দিন, তুরাগ থানা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি মো. নাসির ও মো. বারেক প্রমুখ।

Matched Content

দৈনিক সময় সংবাদ ২৪ ডট কম সংবাদের কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি,আলোকচত্রি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে র্পূব অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করা সর্ম্পূণ বেআইনি। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে যে কোন কমেন্সের জন্য কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়।


Shares