| |

নির্বাচনী ইশতেহার অনুযায়ী সংখ্যালঘুদের স্বার্থ রক্ষার দাবি

প্রকাশিতঃ 8:32 pm | December 21, 2018

স্টাফ রিপোর্টার : একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে বিভিন্ন দলের নির্বাচনী ইশতেহার অনুযায়ী ধর্মীয় সংখ্যালঘু জনগোষ্ঠীর স্বার্থ রক্ষার দাবি জানিয়েছেন বাংলাদেশ হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদ।

শুক্রবার (২১ ডিসেম্বর) জাতীয় প্রেস ক্লাবের ভিআইপি লাউঞ্জে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে রাজনৈতিক দলসমূহের নির্বাচনী ইশতেহারে ধর্মীয় জাতিগত সংখ্যালঘু জনগোষ্ঠীর অধিকার নিশ্চিত করণার্থে ঘোষিত অঙ্গীকার বিষয়ে বাংলাদেশ হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এ দাবি জানানো হয়।

সংবাদ সম্মেলনে বক্তারা বলেন, দেশে আওয়ামী লীগ, দেশের সব রাজনৈতিক দল প্রায় অভিন্ন সুরে সংখ্যালঘু মন্ত্রণালয় ও জাতীয় সংখ্যালঘু কমিশন গঠন, সংখ্যালঘু সুরক্ষা আইন প্রণয়ন, অর্পিত সম্পত্তি প্রত্যর্পণ আইনের যথাযথ বাস্তবায়ন, সমতল আদিবাসীদের জন্য ভূমি কমিশন গঠন, বৈষম্য বিলোপ আইন প্রণয়ন এবং পার্বত্য ভূমি বিরোধ নিষ্পত্তি কমিশন আইনের বাস্তবায়নসহ পার্বত্য শান্তি চুক্তির পূর্ণ বাস্তবায়নের অঙ্গীকার করেছে। এ ছাড়াও সিপিবিসহ রাজনৈতিক দলসমূহ আরও অনেক ব্যাপারে আমাদের সাত দফা দাবির বেশ কয়েকটির সঙ্গে ঐক্যমত পোষণ করেছে। এ সংবাদ সম্মেলন থেকে এহেন অঙ্গীকার ঘোষণার জন্য সব রাজনৈতিক দলের প্রতি আমাদের আন্তরিক ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা।

তারা বলেন, আশা করি এবং নিশ্চিতই বিশ্বাস করতে চাই, আগামী সংসদ নির্বাচনের মধ্য দিয়ে যারাই সরকার গঠন করুক বা সংসদের বিরোধী দলের অবস্থান নিক তারা তাদের নির্বাচনী ইশতেহারে প্রদত্ত প্রতিশ্রুতি যথাযথ বাস্তবায়নের আন্তরিক পদক্ষেপ গ্রহণ করে জনমনে রাজনীতির প্রতি আস্থা ও শ্রদ্ধা করে তুলবেন।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদক রাণা দাশগুপ্ত, প্রেসিডিয়াম সদস্য কাজল দেবনাথ, বাসুদেব ধর, শ্রীমতি মঞ্জু প্রমুখ।


দৈনিক সময় সংবাদ ২৪ ডট কম সংবাদের কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি,আলোকচত্রি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে র্পূব অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করা সর্ম্পূণ বেআইনি। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে যে কোন কমেন্সের জন্য কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়।


Shares
error: Content is protected !!