| |

মাটিরাঙ্গায় বিজিরি বিরুদ্ধে অপপ্রচার

বাংলাদেশের জনপ্রিয় ও সর্বশেষ খবর পেতে আ্যপসটি ইনস্টল করুন

প্রকাশিতঃ 3:30 pm | October 23, 2018

আব্দুর রহিম, জেলা প্রতিনিধি খাগড়াছড়ি : পার্বত্য চট্টগ্রামের বিজিবির বিরুদ্ধে ধারাবাহিক অপপ্রচারের অংশ হিসেবে এবার খাগড়াছড়ির মাটিরাঙ্গা উপজেলাধীন পলাশপুর বিজিবির বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রে নেমেছে একটি বিশেষ মহল। ষড়যন্ত্রের অংশ হিসেবে বর্ডার গার্ড ব্যাটালিয়ন-বিজিবি‘র এক জওয়ানের বিরুদ্ধে সরোজ ত্রিপুরা নামে এক পাহাড়ী যুবককে মারধরের মতো বানোয়াট ও ভিত্তিহীন সংবাদ প্রচার করা হয়েছে। এধরনের ভিত্তিহীন সংবাদকে পাহাড়ের সাম্প্রদায়িক-সম্প্রীতি ও শান্তির পথে বাঁধা হিসেবে দেখছে স্থানীয়রা।

স্থানীয়দের সাথে কথা বলে জানা গেছে, বিজিবির নির্ধারিত এলাকার সার্বিক পরিস্থিতি নিয়ে গত ২২ অক্টোবর স্থানীয় বিজিবি ক্যাম্পে মতবিনিময় সভার আয়োজন করা হয়। উক্ত সভায় অন্যদের সাথে ময়দাছড়া গ্রামের সরোজ ত্রিপুরাকে আমন্ত্রন জানানো হলেও সে মতবিনিময় সভায় আসেনি। এদিন বিকালের দিকে মতবিনিময় সভায় না আসার কারন জানতে চাইলে সরোজ ত্রিপুরা বিজিবি‘র হাবিলদার মো: হুমায়ুনসহ বিজিবি জওয়ানদের সাথে খারাপ আচরন করে। এসময় সে মতবিনিময় সবা নিয়েও বিরূপ মন্তব্য করে। এসময় সেখানে উপস্থিত কার্বারীসহ অন্যরা সরোজ ত্রিপুরাকে নিবৃত করেন।

স্থানীয় কার্বারী সুনীল কুমার ত্রিপুরা ও সাবেক ইউপি মেম্বার অনিল কুমার ত্রিপুরা জানান, বিজিবি কর্তৃক সরোজ ত্রিপুরাকে মারধরের ঘটনা সত্য নয়। উল্টো সরোজ ত্রিপুরা বিজিবির সাথে খারাপ আচরন করেছে। একই কথা উল্লেখ করে স্থানীয় কিনারাম ত্রিপুরা বলেন, বিজিবির সাথে সাধারন মানুষের সম্পর্ক খারাপ করতে এসব মিথ্যা সংবাদ লেখা হয়েছে। তারা জানান, ময়দাছড়ার জাপান ত্রিপুরার ছেলে সরোজ ত্রিপুরা দীর্ঘদিন ধরে নিজেকে ইউপিডিএফের কর্মী দাবী করে সাধারন মানুষকে ভয়-ভীতি দেখিয়ে চাঁদা আদায় করছে।

বর্ডার গার্ড ব্যাটালিয়ন-বিজিবি এখানে সাধারন মানুষের কল্যানে কাজ করছে জানিয়ে স্থানীয় অনেকেই নিজেদের নাম প্রকাশ না করার শর্তে ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, আমাদের এলাকায় বিজিবি আসলে সরোজ ত্রিপুরাসহ তাদের সমস্যা হয় বলেও বিজিবির বিরুদ্ধে অপপ্রচার করা হচ্ছে। তারা অপপ্রচারকারীদের চিহ্নিত করে আইনের আওতায় আনারও দাবী জানান।

(প্রতিকী ছবি)


দৈনিক সময় সংবাদ ২৪ ডট কম সংবাদের কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি,আলোকচত্রি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে র্পূব অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করা সর্ম্পূণ বেআইনি। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে যে কোন কমেন্সের জন্য কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়।


Shares
error: Content is protected !!