| | শনিবার, ২৯শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ১৬ই রবিউস-সানি, ১৪৪১ হিজরী |

ইহুদি রাষ্ট্র আইন বাতিলের দাবিতে উত্তাল তেল আবিব

প্রকাশিতঃ ৭:২১ অপরাহ্ণ | আগস্ট ১২, ২০১৮

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : ইহুদি রাষ্ট্র আইন বাতিলের দাবিতে ইসরায়েলের রাজধানী তেল আবিবে বিক্ষোভে নেমেছেন হাজার হাজার মানুষ। ইতিহাসে নজিরবিহীনভাবে এই বিক্ষোভ র‌্যালিতে যৌথভাবে অংশ নেন ইহুদি এবং আরব সম্প্রদায়ের লোক। শনিবার রাত থেকে শুরু হওয়া এই বিক্ষোভ রবিবারও অব্যাহত রয়েছে।

গতমাসে ইসরায়েলকে ‘ইহুদি রাষ্ট্র’ঘোষণা করে পাস হয় ‘ইহুদি রাষ্ট্র আইন’। এই আইন অনুযায়ী, ইজরায়েলে থাকা অ-ইহুদি নাগরিকদের দ্বিতীয় শ্রেণীর মর্যাদায় রাখা হয়েছে। এছাড়াও ইসরায়েলি নাগরিকত্ব পাওয়া ফিলিস্তিনি এবং অন্যান্য সংখ্যালঘুরাও থাকবেন এই কাতারে। আর সেকারণেই এই আইনটিকে ঘিরে তৈরি হয়েছে অসন্তোষ।

শনিবার রাতে মিছিলে অংশ নেওয়া এক বিক্ষোভকারী আল জাজিরাকে বলেন, ‘এটা খুবই চমৎকার। এই প্রথমবার আমি দেখছি যে, ইহুদি আর ফিলিস্তিনিরা কোনো কিছুর দাবিতে একসাথে বিক্ষোভ করছে। যারা গণতন্ত্র এবং একতায় বিশ্বাস করে তাদের জন্য এটা খুবই ভালো লাগার এক মুহুর্ত।’

চলতি বিক্ষোভে ইহুদি নাগরিকেরা, যাদের প্রথম শ্রেণীর মর্যাদায় রাখা হয়েছে, তারাও বিক্ষোভে অংশ নিয়েছেন। তাদের দাবি, সকল নাগরিকের মর্যাদা হবে সমান।

ড্যান মেইরি নামে এক বিক্ষোভকারী জানান, ‘আমরা অনেক ইহুদিরাই মনে করি যে, বাকি যারা আছেন (সংখ্যালঘু) তারাও আমাদের মতোই একই মর্যাদার দাবিদার। এটা ইহুদি রাষ্ট্র হতে পারে কিন্তু আমরা যারা এখানে একত্রে বসবাস করছি তাদের সবাইকে শিক্ষা, সেনা, বিশ্ববিদ্যালয় এবং সংসদসহ সবজায়গায় সমান সুযোগ লাভের অধিকার আছে।’

গতমাসে ইসরায়েলের সংসদে পাস হওয়া ওই আইনে বলা হয়, জাতীয় ব্যক্তি স্বাধীনতার অধিকার ‘শুধু’ইহুদিদের। এছাড়াও ইসরায়েলের অফিস আদালতে দাপ্তরিক ভাষা হিসেবে হিব্রুকে স্বীকৃতি দেওয়া হয়। আগে হিব্রু এবং আরবি; দুটোই রাষ্ট্রের দাপ্তরিক ভাষা ছিল।

Matched Content

দৈনিক সময় সংবাদ ২৪ ডট কম সংবাদের কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি,আলোকচত্রি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে র্পূব অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করা সর্ম্পূণ বেআইনি। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে যে কোন কমেন্সের জন্য কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়।


Shares