| |

হালুয়াঘাটে পরিবেশ অধিদপ্তরের নামে চাঁদাবাজী আটক-৬

প্রকাশিতঃ 9:32 pm | March 13, 2018

হালুয়াঘাট (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি : হালুয়াঘাটে বিভিন্ন ইট ভাটায় পরিবেশ অধিদপ্তরের প্রতিনিধি হিসেবে চাঁদাবাজী করার সময় ৬ প্রতারক ও ভাড়ায় চালিত এক প্রাইভেট কার চালক সহ প্রতারক চক্রের ব্যবহৃত গাড়ীটি আটক করে হালুয়াঘাট থানা পুলিশ। মঙ্গলবার বিকালে উপজেলার দড়িনগুয়া মেজর ইট ভাটা থেকে প্রতারকদের আটক করা হয়।

আটককৃতরা হলেন, বরিশাল জেলার মুলাধি থানার বালিয়াতলী গ্রামের মৃত আব্দুল করিম সরদারের পুত্র ওমর আলী, গাজীপুর জেলার গাজীপুর থানার বালিয়াপাড়া গ্রামের মৃত আসলাম ভুইয়ার পুত্র জসিম উদ্দিন, একই জেলা ও থানার গজারিয়া গ্রামের মৃত আবুল হোসেন এর পুত্র শাহজাহান, দিনাজপুর জেলার হাকিমপুর থানার চৌধুরী ডাঙ্গাপাড়া গ্রামের আজাদ সরকারের পুত্র রবিউল ইসলাম, হালুয়াঘাট উপজেলার ধুরাইল গ্রামের শমসের আলীর পুত্র হেলাল উদ্দিন এবং গাজীপুর জেলার কোনাবাড়ী গ্রামের গাড়ী চালক মৃত রুপচান মিয়ার পুত্র মকবুল হোসেন।

উপজেলা ইট ভাটা মালিক সমিতির সভাপতি আবু আব্দুল্লাহ হোসেন খান (তারা মিয়া) বলেন,প্রতারক চক্রের সদস্যরা তার সি,সি,বি ইট ভাটায় গিয়ে পরিবেশ অধিদপ্তরের প্রতিনিধি পরিচয় দিয়ে ৫ হাজার টাকা চাঁদা নেয়। পাশাপাশি এসবিএম ইট ভাটা থেকে ৬ হাজার টাকা চাঁদা নেয় এবং শাপলা ইট ভাটা থেকে ২৫ শত টাকা চাঁদা উত্তোলন করেন। পরে ঘটনাটি বিভিন্ন ভাটা মালিকগণ জানার পর ময়মনসিংহ পরিবেশ অধিদপ্তরের উপপরিচালককে মুঠোফোনের মাধ্যমে বিষয়টি অবগত করার পর জানতে পারেন চাঁদা উত্তোলনকারী ব্যক্তিরা পরিবেশ অধিদপ্তরের প্রতিনিধি নয়। পরে চাঁদাবাজদের বিষয়টি থানা পুলিশকে অবগত করার পর হালুয়াঘাট থানার এসআই খোকন চন্দ্র সরকার সঙ্গীয় পুলিশ নিয়ে দড়িনগুয়া গ্রামের মেজর ইট ভাটা থেকে প্রতারক চক্রের সদস্যদের আটক করেন।

পুলিশের উপস্থিতিতে প্রতারক চক্রের সদসরা জানায় তারা ঢাকার ফকিরাপুল এলাকা থেকে প্রকাশিত সাপ্তাহিক নতুন সকাল নামক পত্রিকার ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক ও সাংবাদিক। এ বিষয়ে মেজর ইট ভাটার কর্তৃপক্ষ উত্তম সরকার বাবুল বলেন, প্রথমে পরিবেশ অধিদপ্তরের প্রতিনিধি জানালেও পুলিশ আসার পর তারা সাংবাদিক পরিচয় প্রদান করেন। পাশাপাশি মাফ মুক্তি করার জন্য আকুতি মিনতি করেন।

????????????????????????????????????

এ বিষয়ে প্রতারক চক্রের সদস্য অখ্যাত সাপ্তাহিক নতুন সকাল পত্রিকার ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক পরিচয়দানকারী ওমর আলী সহ বিভিন্ন পদের সাংবাদিক পরিচয় প্রদানকারীরা বলেন, উপস্থিত সাংবাদিকদের কোন সদ উত্তর দিতে পারেন নি। আবার দুই এক জন বলেন তাদের সফর সঙ্গী হয়ে চাঁদা বাজী করেন।

এ বিষয়ে ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কামরুল ইসলাম মিঞা বলেন, চাঁদাবাজীর খবর পাওয়ার পর পুলিশ প্রেরণ করে প্রতারক চক্রের সদস্যদের জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় নিয়ে আসছেন। অভিযোগ পেলে প্রযোজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করবেন।


দৈনিক সময় সংবাদ ২৪ ডট কম সংবাদের কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি,আলোকচত্রি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে র্পূব অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করা সর্ম্পূণ বেআইনি। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে যে কোন কমেন্সের জন্য কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়।